ইনসাফ, কল্যাণ রাষ্ট্রের জন্য চাই ভাল নেতা-নীতি -চরমোনাই পীর

ইনসাফ, কল্যাণ রাষ্ট্রের জন্য ভাল নেতা ও নীতির প্রয়োজন -পীর সাহেব চরমোনাই

0

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের আমির মুফতি সৈয়দ মুহাম্মদ রেজাউল করিম পীর সাহেব চরমোনাই বলেছেন, দেশ স্বাধীনতার ৪৭ বছর অতিক্রম হলেও দেশবাসি কাঙ্খিত শান্তি ও মুক্তি পায়নি। শান্তির আশায় মানুষ দিকবিদিক ছুটোছুটি করছে। কিন্তু শান্তি কিসে? তা জানে না। এভাবে কিয়ামত পর্যন্ত ছুটাছুটি করলেও শান্তি আসবে না। পীর সাহেব বলেন, মানুষ এক দল ছেড়ে অন্য দলে যাচ্ছে, এক জোট ছেড়ে অন্য জোটে যাচ্ছে। এমনকি জাতির বিবেক ওলামায়ে কেরামও আজ দিক হারিয়ে ফেলছেন। তারাও শান্তির আশায় এবং ইসলাম প্রতিষ্ঠায় জোট-মহাজোটে ছুটাছুটির দিকে ধাবিত হচ্ছেন। তিনি অত্যন্ত অনুনয় করে বলেন, তাগুতের সংশ্রব ত্যাগ করতে না পারলে এবং ইসলামকে একমাত্র আদর্শ মানতে না পারলে কস্মিণকালেও শান্তি ও মুক্তি আশা করা যায় না। দুর্নীতি, দুঃশাসনমুক্ত কল্যাণরাষ্ট্র গড়ে তুলতে হলে, ভালো নেতার অধীনে ভালো নীতির বাস্তবায়ন ঘটাতে হবে। কিন্তু বিগত দিনে দেশ শাসনে ভালো নীতি ও পদ্ধতি গ্রহণ করা হয়নি। ভালো নেতা নির্বাচনের পরিবেশ তৈরী করা হয়নি। ক্ষমতাসীনরা নিজেদের স্বার্থে বারবার সংবিধানে পরিবর্তন ঘটিয়েছে। নিজেদের বানানো সংবিধানের দোহাই দিয়ে বারবার কৃত্রিমভাবে জাতীয় সংকট সৃষ্টি করেছে। এ অবস্থার পরিবর্তনের জন্য আগামী নির্বাচনে হাতপাখার পক্ষে ভোট বিপ্লব ঘটাতে হবে।
গতকাল বেলা ১২টায় কুড়িগ্রাম জেলার নাগেশ্বরী উপজেলার ডি.এম একাডেমী খেলা মাঠে অনুষ্ঠিত বিশাল ইসলামী মহাসম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন। এতে কুড়িগ্রাম জেলার শীর্ষ ওলামায়ে কেরাম, মসজিদের ইমাম-খতীব ও দলীয় নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন। মহাসম্মেলনে সকাল থেকেই জনতার উপচেপড়া ভীড় পরিলক্ষিত হয়। বেলা বাড়ার সাথে সাথে বেলা ১২টায় যখন পীর সাহেব চরমোনাই বক্তব্য রাখেন তখন একাডেমী এলাকায় তিলধারণের ঠাই ছিল না।
নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচনের দাবিতে সারাদেশে ইসলামী আন্দোলনের বিক্ষোভ সমাবেশ ও জেলা প্রশাসকের নিকট স্মারকলিপি কর্মসূচি আগামীকাল ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ ৫ অক্টোবরের মহাসমাবেশে ঘোষিত কর্মসূচির অংশ হিসেবে রবিবার জেলা জেলায় বিক্ষোভ সমাবেশ ও জেলা প্রশাসকের নিকট স্মারকলিপি পেশ কর্মসূচি পালন করবে। দুর্নীতি, দুঃশাসন, সন্ত্রাস ও মাদকমুক্ত কল্যাণরাষ্ট্র প্রতিষ্ঠাসহ অবাধ, সুষ্ঠু নিরপেক্ষ ও গ্রহণযোগ্য নির্বাচন অনুষ্ঠানের দাবিতে এ বিক্ষোভ সমাবেশ ও স্মারকলিপি প্রদান কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হবে। রবিবার সারাদেশে স্মারকলিপি পেশ কর্মসুচি সফল জেলা নেতাকর্মীসহ সর্বষÍরের ইশানদার দেশপ্রেমিক জনতার প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন দলের মহাসচিব াধ্যক্ষ হাফেজ মাওলানা ইউনুছ আহমাদ, যুগ্ম মহাসচিব অধ্যাপক মাওলানা এটিএম হেমায়েত উদ্দিন।
ঢাকা জেলার কর্মসুচি : ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ ঢাকা জেলা শাখা রাজধানীর বাহাদুর শাহ পার্কে সকাল ১০টায় জমায়েতশেষে ঢাকা জেলা প্রশাসকের নিকট স্মারকলিপি পেশ করবে। দলের ঢাকা জেলা সভাপতি আলহাজ্ব সৈয়দ আলী মোস্তফা ও সেক্রেটারী আলহাজ্ব শাহাদাত হোসেন কর্মসূচি সফলে সকলের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।
বার্তা প্রেরক – আহমদ আবদুল কাইয়ূম, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক

Share.
Loading...

Comments are closed.