ইভিএম ভোট জালিয়াতির সুযোগ করে দেবে -মোসাদ্দেক বিল্লাহ মাদানী

ইভিএমে ভোট জালিয়াতির অনেক সুযোগ করে দেবে -সৈয়দ মোসাদ্দেক বিল্লাহ মাদানী

0

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহার বহাল রেখে আইন পাশের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের প্রেসিডিয়াম সদস্য প্রিন্সিপাল সৈয়দ মোসাদ্দেক বিল্লাহ আল-মাদানী। তিনি বলেন, নির্বাচন কমিশনের সঙ্গে সংলাপে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দল, পেশাজীবী সংগঠনগুলো জাতীয় নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহার না করার মতামত দিয়েছিল। নির্বাচন কমিশনও এ নিয়ে আশ^স্ত করেছিল। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে ইভিএম পদ্ধতিতে ভোট গ্রহণ করা নিয়ে নির্বাচন কমিশনের তোড়জোড় করে ইভিএম মেশিন ক্রয় এবং এ সংক্রান্ত আইন পাশ করে ডিজিটাল কারচুপির ক্রান্ত করছে সিইসি। প্রবল আপত্তির পরও ইভিএম আইন পাশ দুরভিসন্ধিমূলক ও হীন রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত বলেই মনে হচ্ছে। তিনি বলেন, ‘ইভিএমে ভোট জালিয়াতি ও ভোট চুরির অনেক সুযোগ থাকবে বলেই সরকার নির্বাচন কমিশনকে দিয়ে নির্বাচনের আগে ইভিএম ব্যবহারে ব্যতিব্যস্ত হয়ে পড়েছে। ভোটারবিহীন সরকারের দিক থেকে ভোটাররা মুখ ফিরিয়ে নিয়েছে বলেই এখন ডিজিটাল মেশিন কারচুপির ওপর নির্ভর করছে। কেননা তিন সিটি নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহৃত কেন্দ্রগুলো ডিজিটাল কারচুপি হয়েছে যা দেশবাসি লক্ষ্য করেছে। তিনি বলেন, সবার মতামত উপেক্ষা করে তড়িঘড়ি করে আরপিও সংশোধনের মাধ্যমে ইভিএম ব্যবহারের আইন পাশ ষড়যন্ত্র।
আজ বিকেলে পুরানা পল্টনস্থ কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে নির্বাচন পর্যালোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন। সভায় বক্তব্য রাখেন দলের মহাসচিব অধ্যক্ষ মাওলানা ইউনুছ আহমাদ, যুগ্ম মহাসচিব অধ্যাপক মাওলানা এটিএম হেমায়েত উদ্দিন ও মাওলানা গাজী আতাউর রহমান, সহকারি মহাসচিব মাও. আব্দুল কাদের ও মুহা. আমিনুল ইসলাম, দক্ষিণ সভাপতি মাওলানা ইমতিয়াজ আলম, উত্তর সভাপতি অধ্যক্ষ শেখ ফজলে বারী মাসউদ, সাংগঠনিক সম্পাদক প্রকৌশলী আশরাফুল আলম, প্রচার সম্পাদক মাওলানা আহমদ আবদুল কাইয়ূম, আলহাজ¦ হারুন অর রশিদ, মাওলানা দেলাওয়ার হোসাইন সাকী প্রমুখ।
মহাসচিব বলেন, নির্বাচন কমিশন জনগণের ইচ্ছার বিরুদ্ধে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম) নামে এক বিতর্কিত মাধ্যম ব্যবহারের চিন্তা করছে’ বলে ইভিএম আইন পাশ করছে। ইভিএম নিয়ে বিশ্বজুড়ে যখন হতাশা ও সমালোচনার ঝড় বইছে, তখন এই ধরনের উদ্যোগ কার ইশারায় তা জাতির কাছে সুস্পষ্ট।
বার্তাপ্রেরক – আহমদ আবদুল কাইয়ূম, প্রচার সম্পাদক

Share.
Loading...

Comments are closed.