Monday , April 6 2020
Home / Politics / ঢাকায় আলীগ ও বিএনপি’র তরুণ নেতৃবৃন্দের সংবাদ সম্মেলন আয়োজন
ad
ঢাকায় আলীগ ও বিএনপি’র তরুণ নেতৃবৃন্দের সংবাদ সম্মেলন আয়োজন
AL - BNP young leaders' joint press conference in Dhaka on Wednesday

ঢাকায় আলীগ ও বিএনপি’র তরুণ নেতৃবৃন্দের সংবাদ সম্মেলন আয়োজন

মগবাজার – মৌচাক – মালিবাগ ফ্লাইওভারের নিচে ফুটপাতের অবৈধ দখল উচ্ছেদ ও স্থানান্তরের দাবিতে
ঢাকা, বুধবার ২৪ অক্টোবর ২০১৮: আজ ২৪ অক্টোবর ২০১৮ তারিখে ঢাকা রিপোর্টারস্ ইউনিটিতে মগবাজার – মৌচাক – মালিবাগ ফ্লাইওভারের নিচে ফুটপাতের অবৈধ দখল উচ্ছেদ ও স্থানান্তরের দাবিতে গোপালগঞ্জ জেলা মহিলা দলের সদস্য এবং রোকেয়া হল ছাত্র দলের সাংগঠনিক সম্পাদক সাবরিনা বিনতে আহমেদ, ঝালকাঠি মহিলা দলের সিনিয়র যুগ্ম সম্পাদক শাহজাদী কোহিনূর পাপড়ি ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় উপ-কমিটির সদস্য আয়শা খাতুন পপি যৌথভাবে একটি সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করেন। এ সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মুন্সী কামরুজ্জামান কাজল, কাউন্সিলর, ১৯ নং ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জনাব তৌহিদুল হক, সহকারী অধ্যাপক, সমাজকল্যাণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউট, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়।
সংবাদ সম্মেলনে আয়োজকবৃন্দ বলেন, ঢাকা মহানগরীর ১৯ ও ৩৫ নং ওয়ার্ডের আওতায় রয়েছে সিদ্ধেশ্বরী বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ, ইস্পাহানি গার্লস স্কুল আ্যন্ড কলেজ, আবু জর গিফরী বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ, এ জি চার্চ মিশনারি স্কুল, কমিউনিটি মেডিকেল কলেজ আ্যন্ড হসপিটাল, ড: সিরাজুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ আ্যন্ড হসপিটাল, আদ-দ্বীন মেডিকেল কলেজ আ্যন্ড হসপিটাল, এসপিআরসি, এবং হলি ফ্যামিলি মেডিকেল কলেজ আ্যন্ড হসপিটাল। প্রতিনিয়ত অসংখ্য মানুষকে ফ্লাইওভারের নিচের রাস্তা অতিক্রম করে এ প্রতিষ্ঠানগুলোতে যাতায়াত করতে হয়। এ রাস্তায় অবৈধ দখলের কারণে সাধারণ মানুষের চলাচল মারাত্মকভাবে বি হচ্ছে। এছাড়া, অবৈধ গাড়ি পার্কিং এর কারণে সবসময় যানজট লেগে থাকে। পথচারীরা ঝুঁকি নিয়ে রাস্তা পারাপার হচ্ছেন প্রতিদিন। যেখানে সেখানে ময়লা ফেলার কারণে বৃষ্টির কারণে জলাবদ্ধতা সৃষ্টি হয় এবং পানি দীর্ঘদিন ধরে জমে থাকে, যা কিনা জনস্বাস্থ্যের জন্য ঝুঁকিপূর্ণ। আয়োজকবৃন্দ সংশ্লিষ্ঠ কর্তৃপক্ষের কাছে অবৈধ দখল উচ্ছেদ করে অস্থায়ী দোকানপাট যথার্থ জায়গায় স্থানান্তরের সুপারিশ জানান। এছাড়া, এই এলাকায় সুষ্ঠু বর্জ্য ব্যবস্থাপনার ওপর গুরুত্ব দেন।
সংবাদ সম্মেলনে ওয়ার্ড কাউন্সিলর বলেন, ‘রাতারাতি আমরা ভাসমান দোকানগুলো উচ্ছেদ করতে পারবো না। কিন্তু পুনর্বাসনের জন্য ব্যবস্থা নিতে হবে’।
এর পূর্বে আয়োজকবৃন্দ এলাকার ভূক্তভোগী প্রায় ৭০০ জনসাধারণের স্বাক্ষর সংগ্রহ করেন এবং সুপারিশসহ একটি আবেদনপত্র সংশ্লিষ্ঠ কর্তৃপক্ষ বরাবর জমা দেন।

adadad